নেইমারদের পেছনে ব্যয় ৩০৫৫ কোটি টাকা!


অবিশ্বাস্য মনে হতে পারে। কারও কারও চোখ আবার উঠে যাবে কপালে! কিন্তু এটাই সত্য। কাভানি-এমবাপ্পে-নেইমার আর উনাই এমেরিদের পেছনে বার্ষিক ২৭ কোটি ৯০ লাখ ব্রিটিশ পাউন্ড পারিশ্রমিক দিয়ে থাকে প্যারিস সেন্ট জার্মেই (পিএসজি)। বাংলাদেশি মুদ্রায় যার পরিমাণ ৩০৫৫ কোটি টাকা!

এজন্যই খেলোয়াড়, কোচ ও ক্লাব কর্মকর্তাদের পারিশ্রমিক প্রদানে বিশ্বসেরা ক্লাব এখন পিএসজি। এর পেছনে বড় ভূমিকাটা রাখছেন কে? তা অবশ্য সবারই জানা। সপ্তাহে পাঁচ লাখ ৩৭ হাজার ব্রিটিশ পাউন্ড পাওয়া নেইমার। বার্সেলোনা থেকে যাকে দলে ভেড়াতে খরচ করতে হয় ২২২ মিলিয়ন ইউরো।

পারিশ্রমিক দেয়ার দিক থেকে দ্বিতীয় স্থানে অবস্থান নেইমারেরই সাবেক ক্লাব বার্সেলোনা। সপ্তাহে সর্বোচ্চ পাঁচ লাখ ব্রিটিশ পাউন্ড পাওয়া লিওনেল মেসির ক্লাবটির বার্ষিক খরচ ২৬ কোটি ৮০ লাখ ব্রিটিশ পাউন্ড।

এর পরের তিনটি ক্লাবই প্রিমিয়ার লিগের। তৃতীয়, চতুর্থ এবং পঞ্চম স্থানে অবস্থান যথাক্রমে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, চেলসি এবং ম্যানচেস্টার সিটির।

বার্সেলোনার চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদ রয়েছে ছয় নাম্বারে। তাদের বার্ষিক খরচ ২৪ কোটি ব্রিটিশ পাউন্ড। শীর্ষ দশে একমাত্র জায়গা করে নেওয়া জার্মান বুন্দেস লিগার ক্লাব বায়ার্ন মিউনিখ আছে সপ্তম স্থানে। ব্যয় ২৩ কোটি পাঁচ লাখ ব্রিটিশ পাউন্ড। অষ্টম ও নবম স্থানেও প্রিমিয়ার লিগের দুই ক্লাব আর্সেনাল এবং লিভারপুল। দশে রয়েছে ইতালিয়ান সিরি’এ লিগের ক্লাব জুভেন্টাস। বুফন-হিগুয়েইন কিংবা ম্যাসিমিলিয়ানো অ্যালেগ্রির পেছনে তাদের খরচ ১৫ কোটি ব্রিটিশ পাউন্ড।