সামরিক বাজেট বাড়ানোর প্রস্তাবে সম্মতি দিলেন ট্রাম্প


 

মার্কিন সামরিক বাজেট বাড়ানোর প্রস্তাব দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। সামরিক বাজেট বৃদ্ধির প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন তিনি। হোয়াইট হাউজের কর্মকর্তারা বলছেন, ট্রাম্প মার্কিন সামরিক সংস্থা, পেন্টাগনের বাজেট ৫ হাজার ৪০০ কোটি ডলার বাড়াতে চাইছেন। যা পূর্ববর্তী বছরের তুলনায় ১০ শতাংশ বেশি।

অন্যান্য বেশ কিছু খাত থেকে অর্থ ছাঁটাই করে সামরিক খাতে এই অর্থ ব্যয় করা হবে। যেসব খাত থেকে বাজেট ছাঁটাই করে সামরিক খাতে দেওয়া হবে তার মধ্যে বৈদেশিক সাহায্য এবং পরিবেশ রক্ষাও রয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

ডোনাল্ড ট্রাম্প তার এই পরিকল্পনা নিয়ে সরকারের বিভিন্ন সংস্থার সাথে কথা বলেছেন এবং আগামী মে মাসে তার পূর্ণ পরিকল্পনা কংগ্রেসের সামনে তুলে ধরবেন।

হোয়াইট হাউজে বিভিন্ন অঙ্গরাজ্যের গভর্নরদের সাথে এক বৈঠকে দেওয়া বক্তব্যে ট্রাম্প বলেন, সামরিক খাতে এই বর্ধিত বাজেটটির মাধ্যমে তিনি পুরো বিশ্বকে একটি বার্তা দিতে চান।

তিনি বলেন, ‘এই বাজেটটি হবে জননিরাপত্তা এবং জাতীয় নিরাপত্তার বাজেট। এই দুটো বিষয়ের ওপর গুরুত্ব থাকবে, তবে আরও অনেক বিষয়ও থাকবে। সামরিক বাজেটে ঐতিহাসিক বৃদ্ধি ঘটবে যার মাধ্যমে আমাদের সামরিক বাহিনীকে পুনর্গঠিত করা হবে। এটি একটি মাইলফলক। এই সময়ে যুক্তরাষ্ট্রের শক্তি, নিরাপত্তা এবং সংকল্প সম্পর্কে পৃথিবীর কাছে এটি একটি বার্তা।’

ট্রাম্প তার নির্বাচনী প্রচারণার সময় সামাজিক কল্যাণমূলক কর্মসূচি অব্যাহত রেখে সামরিক ব্যয় বাড়ানোর প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। যুক্তরাষ্ট্রে সাম্প্রতিক বছরগুলোতে কংগ্রেসে কোন্দলের কারণে সামরিক ব্যয় কমেছে।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*