ফুটবলই কাল হলো বার্নসের


মাঠের লড়াইটা ব্যাট-বলের হলেও ক্রিকেটারদের অনুশীলনে দেখা মেলে ফুটবল। বাংলাদেশ দলের অনুশীলনে ফুটবল খেলার দৃশ্য চোখে পড়ে প্রতিনিয়তই। ভারত কিংবা অস্ট্রেলিয়াও ব্যতিক্রম নয়। ইংল্যান্ডের অনুশীলনেও ছিল ফুটবল। কেপটাউন ‍টেস্টের আগের দিন এই ফুটবল খেলতে গিয়েই গোড়ালির চোটে পড়েছিলেন রোরি বার্নস। ছুরি-কাঁচির নিচে যাওয়া এই ওপেনার মাঠের বাইরে ছিটকে গেছেন চার মাসের জন্য।

চলতি কেপটাউন টেস্টে ওপেনার ভূমিকায় দেখা যেত বার্নস। সেঞ্চুরিয়ন টেস্ট ইংল্যান্ড হারলেও ২৯ বছর বয়সী ব্যাটসম্যান খেলেছিলেন ৮৪ রানের কার্যকরী ইনিংস। ফর্মে থাকা ব্যাটসম্যানকে হারানো ইংলিশদের জন্য ছিল বড় ধাক্কা। তাও আবার চোটটা পেয়েছেন তিনি ফুটবল খেলতে গিয়ে। সোমবার অস্ত্রোপচার করতে হয়েছে তার গোড়ালিতে। সুস্থ হয়ে ফিরতে ‍বার্নসের সময় লাগবে চার মাসের মতো।

লম্বা সময় ছিটকে যাওয়ায় বার্নস খেলতে পারবে না শ্রীলঙ্কা সিরিজ। আগামী মার্চে শ্রীলঙ্কা সফরে দুটি টেস্ট খেলবে ইংলিশরা। প্রথম টেস্ট শুরু হবে ১৯ মার্চ। তার জায়গায় শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে কেটন জেনিংসকে বিবেচনা করা হচ্ছে বলে খবর ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম ‘বিবিসি’র।

কেপটাউন টেস্টের আগের দিন বার্নস চোট পাওয়ায় অনুশীলনে ফুটবল নিষিদ্ধ করেছে ইংল্যান্ড ও ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)। ইংল্যান্ড দলের অনুশীলনে তিনিই অবশ্য ফুটবলের প্রথম ‘শিকার’ নন। ২০১৮ সালের অক্টোবরে শ্রীলঙ্কা সফরে ফুটবল খেলতে গিয়ে গোড়ালির চোটে টেস্ট সিরিজের শুরুটা মিস করেছিলেন উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান জনি বেয়ারস্টো। এর আগে জেমস অ্যান্ডারসন আর জো ডেনলিরও একই পরিণতি হয়েছিল।