শেখ হাসিনার ট্রেনবহরে হামলা: ৯ জনের ফাঁসি, ২৫ জনের যাবজ্জীবন



পাবনার ঈশ্বরদীতে ১৯৯৪ সালে তৎকালীন বিরোধী দলীয় নেতা ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনাকে বহনকারী ট্রেনে বোমা হামলার মামলায় ৯ জনের ফাঁসির আদেশ দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে ২৫ জনের যাবজ্জীবন এবং বাকিদের ১০ বছর করে কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।
৩ জুলাই, বুধবার বেলা ১২টার দিকে পাবনার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ রুস্তম আলী এ রায় ঘোষণা করেন। এর আগে গত সোমবার যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শেষে আদেশের জন্য দিন ধার্য করেছিলেন আদালত। ওইদিন জেলহাজতে থাকা বিএনপির ৩০ নেতাকর্মীর উপস্থিতিতে উভয়পক্ষের আইনজীবীরা তাদের যুক্তি তুলে ধরেন।

মামলার ৫২ জন আসামির মধ্যে ৭ জন মারা গেছেন। গত রবিবার ৩০ জন আসামি জামিন আবেদন করলে বিচারক তাদের জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন এবং বাকি আসামিদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, ১৯৯৪ সালের ২৩ সেপ্টেম্বর আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও তৎকালীন বিরোধী দলীয় নেতা সাংগঠনিক সফরে খুলনা থেকে রাজশাহী অভিমুখে ট্রেনযোগে রওনা হন। পথে ঈশ্বরদী স্টেশনে তার একটি নির্ধারিত পথসভা ছিল। তাকে বহনকারী ট্রেনটি পাকশী স্টেশনে পৌঁছার পরপরই ওই ট্রেনে ব্যাপক গুলিবর্ষণ ও বোমা হামলা চালানো হয়।

এদিকে রায় ঘোষণাকে সামনে রেখে ঈশ্বরদী রেলওয়ে জংশন এলাকায় নিরাপত্তা জোরদার করা হয়।