ফুটবল বিশ্বকাপ হবে ৪৮ দলের


fifa_worlcup

ফুটবল বিশ্বের জন্য নিঃসন্দেহে সুখবর দিলো আন্তর্জাতিক ফুটবল সংস্থা ফিফা। ২০২৬ ফুটবল বিশ্বকাপে সবমিলিয়ে ৪৮টি দল অংশগ্রহণ করবে। জুরিখে ফিফার সভায় মঙ্গলবার এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

নতুন নিয়ম বাস্তবায়িত হলে ৩ দলের ফুটবল বিশ্বকাপে ৬৮ ম্যাচ থেকে বেড়ে দাঁড়িয়ে হবে ৮০ ম্যাচে। নতুন ১৬ দলের মধ্যে বাড়তি সুযোগ পেতে পারে আফ্রিকা ও এশিয়ার দলগুলো। প্রাথমিক পর্বে ১৬ গ্রুপে তিনটি করে দল খেলবে। প্রত্যেক গ্রুপ থেকে সেরা দুটি দল নিয়ে হবে ৩২ দলের নকআউট পর্ব। তবে শিরোপা জয়ী দল এখনও সাতটি ম্যাচই খেলবে।

ফিফা সভাপতি জিয়ান্নি ইনফান্তিনো জানিয়েছেন, ভোটের মাধ্যমেই বিশ্বকাপের দল বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

১৯৯৮ সালের পর প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপে কোন পরিবর্তন নিয়ে আসল ফিফা। এ ব্যাপারে জিয়ান্নি জানিয়েছেন, ফুটবলকে ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে দিতেই অংশগ্রহণকারী দেশের সংখ্যা বাড়িয়েছে ফিফা।

তিনি বলেন, ‘আমরা এখন একবিংশ শতাব্দীতে আছি এবং ফুটবল বিশ্বকাপকেও আমাদের একবিংশ শতাব্দীর মতো অবস্থানে নিতে হবে। এটাই ভবিষ্যৎ। ইউরোপ, দক্ষিণ আমেরিকা নয়; ফুটবল বিশ্বের সবার।’

দল বাড়ানোর কারণে আর্থিক দিক থেকেও অনেক বেশি লাভবান হতে যাচ্ছে ফিফা। সংস্থাটির এক গবেষণায় দেখা গেছে, ৫.২৯ বিলিয়ন পাউন্ড বেশি আয় হবে ৪৮-দলের বিশ্বকাপ আয়োজনে।

তবে এমন সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করছে ইউরোপের ক্লাবগুলো। এটাকে তারা, ‘অর্থ ও ক্ষমতা লাভের বিশ্বকাপ’ বলে অভিহিত করেছে।

যদিও, জিয়ান্নি বলেছেন, ‘টাকা কিংবা ক্ষমতা নয়, এর উল্টোটা। এটা ফুটবলের সিদ্ধান্ত।’

৪৮ দলের বিশ্বকাপ বাস্তবায়নের জন্য দীর্ঘ সময় পাচ্ছে ফিফা। কিন্তু মঙ্গলবার আনুষ্ঠানিক ঘোষণার সময় আয়োজক দেশের ব্যাপারে কোন সিদ্ধান্ত এখনও হয়নি বলে জানিয়েছেন ফিফার সভাপতি।