বিসিবির নতুন ওয়ানডে প্রতিযোগিতায় খেলবেন না মাশরাফি


শ্রীলঙ্কা সিরিজ হচ্ছে না। এই অবস্থায় ক্রিকেটারদের খেলার মাঝে রাখতে ১১ অক্টোবর থেকে শুরু হচ্ছে তিন দলের ঘরোয়া ওয়ানডে প্রতিযোগিতা। মাশরাফি বিন মুর্তজাকে সেখানে খেলতে প্রস্তাব দেওয়া হলেও সাবেক অধিনায়ক না খেলারই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন এই প্রতিযোগিতায়।

আন্তর্জাতিক সফর না থাকলেও ঘরোয়া ক্রিকেট দিয়েই প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেট ফেরানোর পরিকল্পনা করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। প্রথম প্রস্তুতি ম্যাচটি শেষ হওয়ায় আন্তদলীয় দুই দিনের ম্যাচ হবে আরও দুটি। তার পরেই হওয়ার কথা ছিল তিন দিনের প্রস্তুতি ম্যাচ। কিন্তু তার বদলে তিনটি দলের ওয়ানডে প্রতিযোগিতার পরিকল্পনা করেছে বিসিবি। যেখানে খেলবে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল, বাংলাদেশ ‘এ’ দল ও হাইপারফরম্যান্স দল (এইচপি)।

 আর এই ম্যাচের জন্যই মাশরাফিকে পাওয়ার আশা করেছিলেন নির্বাচকেরা। তাকে ম্যাচের কথা বলা হলে ফিটনেস ইস্যুতে না খেলার সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছেন মাশরাফি। অবশ্য এমন বলার কারণও আছে। করোনা থেকে সেরে উঠতে দুই সপ্তাহের বেশি সময় নিয়েছেন তিনি। তার ওপর অধিনায়কত্ব ছেড়ে দিলেও মার্চের পর প্রতিযোগিতামূলক কোনও ধরনের ক্রিকেটে অংশ নেননি। এমনকি করোনাকালে বাকিরা ব্যক্তিগত অনুশীলনে ফিরলেও তিনি কোনও ধরনের অনুশীলনে অংশ নেননি।

বিসিবির প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন নান্নু ক্রিকবাজকে বলেছেন, ‘সে খেলার জন্য এখনও ফিট নয়। ফলে টুর্নামেন্টে সে খেলতে পারবে না। আমরা তাদেরকেই নেবো, যারা আমাদের সিস্টেমের অংশ ও অতীতে বিভিন্ন ক্যাম্পে অংশ নিয়েছিল।’