কৃষ্ণাঙ্গকে গুলির প্রতিবাদে সেমিতে ওঠেও সরে দাঁড়ালেন ওসাকা


 

যুক্তরাষ্ট্রে কৃষ্ণাঙ্গ নির্যাতন চলছেই। জর্জ ফ্লয়েড হত্যা ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই পুলিশের গুলিতে আহত হয়েছেন আরেক কৃষ্ণাঙ্গ নাগরিক জ্যাকব ব্ল্যাক। এই ঘটনার প্রতিবাদে বিক্ষোভে উত্তাল হয়ে উঠেছে উইসকনসিন অঙ্গরাজ্য।

একজন কৃষ্ণাঙ্গ নারী হিসেবে এই ঘটনার প্রতিবাদ করাকে নৈতিক দায়িত্ব মনে করছেন বিশ্বের সবচেয়ে দামি টেনিস তারকা নাওমি ওসাকা। নিউইয়র্কে এটিপি টুর্নামেন্টের মাঝপথেই নিজেকে সরিয়ে নিয়েছেন তিনি।

নিউইয়র্কে ওয়েস্টার্ন অ্যান্ড সাউদার্ন ওপেনে সেমিফাইনালে নাম লিখিয়েছিলেন ওসাকা। নারী এককে জাপানিজ এই তারকার প্রতিপক্ষ ছিলেন বেলজিয়ান এলিসে মার্টেনস। সেই ম্যাচটির আগেই সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দেন ওসাকা।

টুইটার অ্যাকাউন্টে তিনি লিখেছেন, ‘একজন কৃষ্ণাঙ্গ নারী হিসেবে আমি মনে করছি, আমাকে টেনিস খেলতে দেখার চেয়ে জরুরীভাবে নজরে আনার মতো এর চেয়েও গুরুত্বপূর্ণ বিষয় এখন সামনে চলে এসেছে।’

দুইবারের গ্র্যান্ডস্লামজয়ী ওসাকা টুইটে আরও লিখেন, ‘কৃষ্ণাঙ্গ মানুষদের পুলিশের হাতে একের পর এক গণহত্যা দেখে আমার আসলেই খুব অসহ্য লাগছে। আর কত হলে এটা যথেষ্ট হবে?’

ওসাকার এমন টুইটের পর ডব্লিউটিএ ওয়েস্টার্ন অ্যান্ড সাউদার্ন ওপেন আয়োজকরা জানিয়েছেন, বৃহস্পতিবার আর কোনো ম্যাচ হবে না। শুক্রবার পর্যন্ত টুর্নামেন্ট স্থগিত করা হয়েছে।