আইপিএলের চেয়ে পিএসএলের বোলিং ভালো!


২০১৬ সালে যখন পকিস্তানের টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট লিগ পাকিস্তান সুপার লিগ (পিএসএল) প্রথম মাঠে গড়ায়, ততদিনে ভারতের টি-২০ ক্রিকেট লিগ আইপিএলের আটটি টুর্নামেন্ট হয়ে গেছে। দর্শক উপস্থিতির বিচারে আইপিএল বিশ্বের সবচেয়ে বড় ক্রিকেট লিগ, আর বৈশ্বিক বিচারে যেকোনও খেলার মধ্যে ষষ্ঠ বৃহত্তম। জাঁকজমক ও বিশালতায় আইপিএলের চেয়ে অনেক পিছিয়ে পিএসএল। তবে ভারত-পাকিস্তানের ক্রিকেট বৈরিতার মতোই দুটি লিগ নিয়ে সবসময়ই তুলনা চলে। তবে একটি দিক দিয়ে অন্তত পিএসএলকে অনেক এগিয়ে রাখছেন পাকিস্তানের কিংবদন্তি পেস বোলিং কিংবদন্তি ওয়াসিম আকরাম। সেটি কী?

ওয়াসিম আকরাম বলছেন, আইপিএলের চেয়ে পিএসএলে বোলিংয়ের মান অনেক ভালো। আকরাম দুটি লিগেই কাজ করেছেন। পিএসএলে খেলা বিদেশি ক্রিকেটারদের সঙ্গে কথা বলে সাবেক পাকিস্তান সতীর্থ বাসিত আলীর ইউটিউব চ্যানেলে শুক্রবার আকরাম বলেছেন, ‘ আমি যে পাঁচ বছর পিএসএলের সঙ্গে যুক্ত আছি, আমি বিদেশি খেলোয়াড়দের কাছে জানতে চেয়েছি দুটি লিগের মধ্যে পার্থক্য কোথায়। তারা সবসময়ই বলেছে, পিএসএলের বোলিংয়ের মান দুর্দান্ত।’

 আকরাম আরও বলেন, ‘আইপিএলে আপনি আক্রমণ করার জন্য (ব্যাটসম্যান হিসেবে) সব দলেই একজন না একজন বোলার পাবেন। কিন্তু বিদেশি খেলোয়াড়দের মতে পিএসএলে বোলিংয়ের মান আইপিএলের চেয়ে অনেক ভালো।’

বাসিত আলীর সঙ্গে অস্ট্রেলিয়ায় আগামী অক্টোবর-নভেম্বরে অনুষ্ঠেয় টি-২০ বিশ্বকাপ নিয়েও কথা বলেছেন পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক। তার মতে এটি আয়োজনের জন্য আইসিসির আরেকটু সময় নেওয়া উচিত। আগামী ১০ জুন আইসিসির বোর্ড সভায় সম্ভবত এই টি-২০ বিশ্বকাপের ভাগ্য নির্ধারিত হতে যাচ্ছে।

আগেরদিন বৃহস্পতিবার দ্য নিউজের কাছে আকরাম দর্শকশূন্যভাবে টি-২০ বিশ্বকাপের আয়োজন-পরিকল্পনার বিরোধিতা করে কথা বলেছেন, ‘ব্যক্তিগতভাবে আমি মনে করি এটা কোনও ভালো পরিকল্পনা নয়। আপনি কিভাবে দর্শকহীন বিশ্বকাপ আয়োজনের কথা ভাবতে পারেন? বিশ্বকাপ মানে অনেক দর্শক হবে, বিশ্বের নানা প্রান্ত থেকে দর্শক আসবে তাদের দলকে সমর্থন জানাতে। এটার জন্য একটা পরিবেশ লাগে, আপনি এটা দরজা বন্ধ করে আয়োজন করতে পারেন না।’