সেমির আগেই ইংল্যান্ডকে উড়িয়ে দিল অস্ট্রেলিয়া!


চলছে ওয়ানডে বিশ্বকাপ। যেখানে আগামী বৃহস্পতিবার (১১ জুলাই) দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি হবে দুই চির প্রতিদ্বন্দ্বী দেশ ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া। তবে সে ম্যাচের আগেই ইংলিশদের রীতিমতো উড়িয়ে দিয়েছে অস্ট্রেলিয়া।

চমকে যাবেন না! সেমির আগে ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার পুরুষ ক্রিকেট দল কোনো ম্যাচ খেলেনি, খেলেছে দুই দেশের নারী ক্রিকেট দল। যেখানে অস্ট্রেলিয়ার কাছে পাত্তাই পায়নি স্বাগতিক ইংল্যান্ডের নারী ক্রিকেট দল।

পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে এখন ইংল্যান্ডে অবস্থান করছে অস্ট্রেলিয়ার নারী দল। যেখানে প্রথম দুই ওয়ানডে জিতে তারা জাগিয়েছিল স্বাগতিকদের হোয়াইটওয়াশ করার সম্ভাবনা। গতকাল (রোববার) দাপুটে এক জয়ে সেটি করেও দেখিয়েছেন অ্যালিসা পেরি-অ্যালিসা হিলিরা।

ক্যান্টাবুরির সেইন্ট লরেন্স গ্রাউন্ডে আগে ব্যাট করে ২৬৯ রানের লড়াকু সংগ্রহ দাঁড় করিয়েছিল অস্ট্রেলিয়া। পরে এ রান তাড়া করতে নেমে অ্যালিসা পেরির বিধ্বংসী বোলিংয়ে মাত্র ৭৫ রানে অলআউট হয়ে যায় ইংল্যান্ড। ফলে ১৯৪ রানের বিশাল ব্যবধানে জয় পায় অস্ট্রেলিয়া।

ইংলিশদের ইনিংসের প্রথম ওভার থেকেই ঝড় তুলতে থাকেন পেরি। সে ওভারের তৃতীয় বলে শূন্য রানে ফেরান অ্যামি জোনসকে। পরে তৃতীয় ওভারের শেষ দুই বলে ট্যামি বেমাউন্ট ও সারাহ জেন টেলরকে আউট করে সম্ভাবনা জাগিয়েছিলেন হ্যাটট্রিকের।

হ্যাটট্রিক হয়নি। তবে দলের পক্ষে কাজের কাজ ঠিকই করেছেন পেরি। নিজের ১০ ওভারের স্পেলে ৪টি মেইডেন নেন পেরি, ডট করেন ৪৯টি বল। মাত্র ২২ রান খরচায় ৭ ব্যাটসম্যানকে সাজঘরে পাঠান তিনি। যা কিনা অস্ট্রেলিয়ার নারী ক্রিকেটের ইতিহাসে সেরা বোলিংয়ের রেকর্ড।

পেরির বিধ্বংসী বোলিংয়ে মাত্র ২১ রানেই ৬ উইকেট হারিয়ে বসে স্বাগতিকরা। তাদের পঞ্চাশের নিচে অলআউটের লজ্জা থেকে বাঁচান লরা মার্শ (২১), ফ্রান উইলসন (১৭) ও আনা শ্রাবসোল (১১)। এ তিনজন ব্যতীত আর কেউই দুই অঙ্কে যেতে পারেননি।

এর আগে উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান অ্যালিসা হিলি ও অধিনায়ক মিগ ল্যানিংয়ের ফিফটিতে ভর করে ২৬৯ রান করে অস্ট্রেলিয়া। হিলি ৬৮ ও ল্যানিং ৬৯ রান করেন।