মোহামেডানকে জেতাতে পারলেন না আশরাফুল


দলের বিপদের মুখে দারুণ এক হাফসেঞ্চুরি করলেন, জেতানোর সুযোগও ছিল। পারলেন না মোহাম্মদ আশরাফুল। তিনি সাজঘরে ফেরার পরই মোহামেডানের সব আশা ভরসা শেষ হয়ে যায়। ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের (ডিপিএল) সুপার লিগপর্বে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বি আবাহনীর কাছে সাদা-কালোরা হেরেছে ৪৫ রানে।

আশরাফুল যখন আউট হন, মোহামেডানের রান তখন ৬ উইকেটে ২৩০। তখনও ১০ ওভারে মতো বাকি। ৫৮ বলে দরকার ছিল ৭৪ রান। তবে শেষ ৪ উইকেট নিয়ে আর বেশিদূর যেতে পারেনি দলটি। ৩০৫ রান তাড়া করতে নেমে গুটিয়ে গেছে ২৫৯ রানেই।

বড় লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ২০ রানে ৩টি আর ৬১ রানের মধ্যে শীর্ষ ৪ ব্যাটসম্যানকে হারিয়ে বিপদে পড়ে গিয়েছিল মোহামেডান। সেখান থেকে দলকে টেনে তুলেন আশরাফুল আর রকিবুল। পঞ্চম উইকেটে তারা গড়েন ১২৮ রানের বড় জুটি।

রকিবুল মাত্র ৪ রানের জন্য সেঞ্চুরি পাননি। মাশরাফি বিন মর্তুজার বলে তিনি ফেরেন ৯৬ রানে। আশরাফুল তখনও আশা হয়ে ছিলেন। ৮৫ বলে ৬ বাউন্ডারিতে ৬৮ রান করে শেষ পর্যন্ত সৌম্য সরকারের শিকার হন ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান। এরপর মোহামেডান আর যোগ করতে পেরেছে ২৯ রান।

আবাহনীর পক্ষে দুটি করে উইকেট নেন মোসাদ্দেক হোসেন আর মাশরাফি বিন মর্তুজা। ২টি উইকেট পান সৌম্য সরকার।

এর আগে সাব্বির রহমান (৫৩ বলে ৬৪), মোহাম্মদ মিঠুন (৫২ বলে ৫৬) আর মোসাদ্দেক হোসেনের হাফসেঞ্চুরিতে (অপরাজিত ৫৪) ভর করে ৭ উইকেটে ৩০৪ রানের বড় সংগ্রহ পেয়েছিল আবাহনী। ৩৫ বলে ৪১ রানের এক ঝড়ো ইনিংস খেলেন মোহাম্মদ সাইফউদ্দিনও।

মোহামেডানের শফিউল ইসলাম ৩টি আর রাহাতুল ফেরদৌস নেন ২টি উইকেট।