কাতারের কারণে ভাঙল বিশ্বকাপ রীতি


রাশিয়া বিশ্বকাপ শেষ হতে-না-হতেই কাতার বিশ্বকাপের সময় ঘোষণা করল ফুটবলের সর্বোচ্চ সংস্থা (ফিফা)। ২০২২ সালে অনুষ্ঠিত এই বিশ্বকাপের খেলা চলবে ২১ নভেম্বর থেকে ১৮ ডিসেম্বর পর্যন্ত। এই প্রথম জুন-জুলাইয়ে বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত করার রীতি থেকে সরে এলো ফিফা। ওই সময়ে কাতারে বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত করা হলে খেলোয়াড়রা আবহাওয়ার সঙ্গে নিজেদের খাপ খাইয়ে নিতে পারবে না। আর তাই প্রথমবারের মতো শীতকালে বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত করার সিদ্ধান্ত নেয় ফিফা।

২০২২ বিশ্বকাপের স্বাগতিক হিসেবে ঘোষণা করার পর থেকেই এই আসর নিয়ে উদ্দীপনা কাজ করছে কাতারের জনগণের মাঝে। এই আসরকে জাঁকজমকপূর্ণভাবে করতে উঠেপড়ে লেগেছে কাতার সরকার। কিন্তু কাতারের অসহনীয় গরমের কারণে সেখানে বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত হওয়া নিয়ে অনিশ্চয়তার মুখে ছিল ফিফা। কিন্তু প্রযুক্তির ভরসায় কাতারে বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত করার সিদ্ধান্ত নেয় তারা।

ওই সময় বিশ্বকাপ হওয়ায় ঝামেলায় পড়তে পারে বিশ্বের বিভিন্ন ক্লাব লিগগুলো। কেননা আগস্ট মাস থেকে শুরু হয়ে প্রায় এক বছর ক্লাব ফুটবল নিয়মিতভাবে চলতে থাকে। কিন্তু কাতার বিশ্বকাপের সময় তাদের লিগগুলো বন্ধ রাখতে হবে। এ বিষয়ে ফিফা থেকে দেওয়া এক বিবৃতিতে বলা হয়, ‘ইতোমধ্যে বিশ্বের সব লিগকে জানানো হয়েছে এবং অবশ্যই তাদের ওই সময়ে মানিয়ে নিতে হবে।’

ক্লাব ফুটবলদের সময়ের সঙ্গে মানিয়ে নেওয়া সম্পর্কে ২০১৫ সালে ফিফার ভাইস-প্রেসিডেন্ট জিম বয়সে বলেন, ‘আমি মনে করি এটি একটি অসাধারণ বিশ্বকাপ হতে পারে। কারণ আমার মনে হয় খেলোয়াড়রা আগের তুলনায় আরও সতেজ থাকবে। এটা শুধু ২৮ দিনের জন্য, পুরো জীবনের জন্য নয়। এর মানে ক্লাব লিগগুলোকে এক বছরের জন্য তিন সপ্তাহ আগে শুরু এবং তিন সপ্তাহ পরে শেষ করতে হবে।’